আজ মঙ্গলবার, ১৯ নভেম্বর ২০১৯ ইং | ৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

শোক র‍্যালিতে কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগ নেতার অট্টহাসি!

মাতৃভূমি ডেস্কঃ
প্রকাশিতঃ ১৫ অগাস্ট ২০১৯ সময়ঃ রাত ১০ঃ১১
শোক র‍্যালিতে কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগ নেতার অট্টহাসি!

 

মাতৃভূমি নিউজঃ

হাসতে নাকি জানেনা কেউ

কে বলেছে ভাই? 

এই শোন না কত হাসির

খবর বলে যাই।

উপরের লাইনগুলো রোকনুজ্জামান খানের 'হাসি' কবিতার হলেও আজ ভিন্ন প্রসঙ্গে লিখছি। শোক র‍্যালিতে অংশ নিয়ে অট্টহাসিতে মশগুল থাকার অভিযোগ উঠেছে বাংলাদেশ ছাত্রলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক নাজমুল সিদ্দিক নাজের বিরুদ্ধে। জানা যায়, আজ ১৫ আগস্ট উপলক্ষে কুষ্টিয়া জেলা আওয়ামী লীগ কর্তৃক আয়োজিত এক শোক র‍্যালিতে অংশ নিয়েছিলেন বাংলাদেশ ছাত্রলীগের এই কেন্দ্রীয় নেতা। এই র‍্যালিতে অংশ নিয়ে তাকে বেশিরভাগ সময়ই হাসিমাখা মুখে দেখা গেছে। 

এ বিষয়ে নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক কুষ্টিয়া জেলা ছাত্রলীগের এক সহ- সভাপতি বার্তাজগৎ২৪ কে জানান, নাজমুল সিদ্দিক নাজ বাংলাদেশ ছাত্রলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক। তিনি আমাদের কুষ্টিয়ার সন্তান। তাকে নিয়ে আমরা গর্ব করি। কিন্তু আজ ১৫ আগস্ট জাতীয় শোক দিবসের শোক র‍্যালিতে তার অট্টহাসি আমাদেরকে ব্যথিত করেছে। মুজিব আদর্শে অনুপ্রাণিত একজন ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় নেতার কাছ থেকে আমরা এমটা আশা করি নাই। তার মতো নেতার কারণেই নানা সময়ে সংগঠন প্রশ্নের সম্মুখীন হয়।

জেলা ছাত্রলীগের এক সহ-সম্পাদক জানান, এমন হাসির মানে কি? আমার জানা নাই। তবে বঙ্গবন্ধুর আদর্শ বুকে নিয়ে যারা ছাত্রলীগ করে, তাদের পক্ষে শোক র‍্যালিতে এসে হাসাহাসি করা সম্ভব নয়। এমন হাসি তারাই হাসতে পারে যাদের মধ্যে আদর্শিক সংকট রয়েছে।

উল্লেখ্য, পঁচাত্তরের পনেরই আগস্ট কালরাতে ঘাতকরা শুধু বঙ্গবন্ধুকেই হত্যা করেনি, তাদের হাতে একে একে প্রাণ দিয়েছেন বঙ্গবন্ধুর সহধর্মিণী বঙ্গমাতা বেগম ফজিলাতুন্নেছা মুজিব, বঙ্গবন্ধুর সন্তান শেখ কামাল, শেখ জামাল, শিশু শেখ রাসেলসহ পুত্রবধূ সুলতানা কামাল ও রোজি জামাল।

পৃথিবীর এই ঘৃণ্যতম হত্যাকাণ্ড থেকে বাঁচতে পারেননি বঙ্গবন্ধুর সহোদর শেখ নাসের, ভগ্নিপতি আব্দুর রব সেরনিয়াবাত, ভাগ্নে শেখ ফজলুল হক মনি, তার সহধর্মিণী আরজু মনি ও কর্নেল জামিলসহ পরিবারের ১৬ জন সদস্য ও আত্মীয়-স্বজন।

 

 

Design & Developed by ProjanmoIT