আজ মঙ্গলবার, ১১ অগাস্ট ২০২০ ইং | ২৬ শ্রাবণ ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

বিয়ের ফাঁদে ফেলে কাবিন ব্যাবসায় অপ্রতিরোধ্য মুসফিকা ওরফে মালা

অনলাইন ডেস্ক
প্রকাশিতঃ ৮ জুন ২০১৯ সময়ঃ রাত ১০ঃ০০
বিয়ের ফাঁদে ফেলে কাবিন ব্যাবসায় অপ্রতিরোধ্য মুসফিকা ওরফে মালা

রাজধানীতে বেড়েছে কাবিন ও মামলা ব্যাবসায়ী চক্রের সক্রিয়তা। 

ঘটনা তদন্তে বেরিয়ে আসে মুসফিকা মালা ওরফে তিথি, মুসু আবার কখনো জান্নাত নামধারী একজন (২৮) পিতাঃ মমতাজ হোসেন। 

এরা যত দ্রুত নাম বদলায় আবার নতুন মক্কেল পেলে এদের জায়গাও দ্রুত পরিবর্তন করে। শুধু তাই নয় নতুন ঠিকানার বাসা তারা ভুয়া বা জাল কাগজ কখনোবা অন্য কারো নামে নিয়ে থাকে। বিভিন্ন সামাজিক যোগাযোগ সাইটে এরা সম্পর্কের জাল বিছায়। টার্গেট থাকে সম্ভ্রান্ত পরিবারের সন্তান বা কোন ধনাঢ্য ব্যবসায়ী।

প্রাথমিক তদন্তে জানা যায় মুসফিকা মালা সহ এই চক্রের আরো সদস্যদের বিরুদ্ধে উত্তারা পশ্চিম থানা, এয়ারপোর্ট থানা, খিলক্ষেত ও মোহাম্মদপুর থানা সহ বিভিন্ন থানায় মামলা রয়েছে।

এরা সম্ভ্রান্ত পরিবারের সন্তান বা কোন ধনাঢ্য ব্যবসায়ীকে প্রেমের ফাঁদে ফেলে বিয়ে করে  মোটা অংকের (১০ থেকে ২০ লক্ষ্য) কাবিন করে টাকা হাতিয়ে নেয়। আবার কখনো বা দেশের আইনি ব্যাবস্থাকে কাজে লাগিয়ে নারী নির্যাতন ও ধর্ষণ সহ বিভিন্ন মামলা দিয়ে ভিক্টিম থেকে হাতিয়ে নিচ্ছে লক্ষ্য লক্ষ্য টাকা। 

এদের করা মামলায় এখনো ঝুলে আছে রিয়ান (৩২) নামের এক যুবক। বাদ যায়নি রাজনীতিবীদও। একটি সুত্রে  জানা যায় সিলেটের মউলোভীবাজার-৪ আসনের বি.এন.পি মনোনীত জনৈক এক এম.পি পার্থী কে ১৭ই এপ্রিল ২০১৬ ইং তারিখে বিয়ে করে এবং মাত্র ১০ মাসের মাথায় ১৫ই ফেব্রুয়ারি ২০১৭ ইং তারিখে তালাক প্রদান করে ১০ লক্ষ্য টাকা হাতিয়ে নেয়  মালা। সাংবাদিকরা ফোনে উক্ত ভিক্টিমকে এব্যাপারে জিজ্ঞেস করলে তিনি ব্যাপারটি মান-সন্মানের ভয়ে অস্বীকার করেন। পরে তথ্য প্রমাণের ভিত্তিতে জিজ্ঞাসাবাদ করলে তিনি সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাব এরিয়ে যান এবং লাইন কেটে দেন।

Design & Developed by ProjanmoIT